৫ই মার্চ, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ, ২১শে ফাল্গুন, ১৪৩০ বঙ্গাব্দ
shadhin kanto

টেক্টর-বার্লের ব্যাটে সিলেটের তৃতীয় জয়

প্রতিনিধি :
shadhin
আপডেট :
ফেব্রুয়ারি ৯, ২০২৪
38
বার খবরটি পড়া হয়েছে
শেয়ার :
| ছবি : 

স্পোর্টস ডেস্ক :খুলনা টাইগার্স শুরুতে রান তুলতে পারলো না খুব একটা। অধিনায়ক এনামুল হক বিজয় ও হাবিবুর রহমান সোহানের জুটিতে লড়াই করার পুঁজি পায় খুলনা। এরপর রান তাড়ায় নেমে একপ্রান্ত আগলে থাকেন হ্যারি টেক্টর, শেষদিকের ঝড়ে সিলেট স্ট্রাইকার্সকে জেতান রায়ান বার্ল।

আজ শুক্রবার বিপিএলের ম্যাচে খুলনা টাইগার্সের বিপক্ষে ৫ উইকেটের জয় পেয়েছে সিলেট। শুরুতে ব্যাট করে ৪ উইকেট হারিয়ে ১৫৩ রান করে খুলনা। ওই রান তাড়া করতে নেমে ১ ওভার হাতে রেখে জয় পায় সিলেট। নবম ম্যাচে এসে টুর্নামেন্টের তৃতীয় জয় পেয়েছে তারা। সপ্তম ম্যাচে এসে এটি তৃতীয় হার খুলনার।

ব্যাট করতে নেমে শুরুর দিকে সেভাবে ছন্দ খুঁজে পায়নি খুলনা টাইগার্সের ইনিংস। ৩ চারে ১০ বলে ১২ রান করে সামিত প্যাটেলের বলে সাজঘরে ফেরত যান এভিন লুইস। ১০ ওভার শেষে দলটির রান ছিল ৫৬। এর মধ্যে আরও দুই উইকেট হারিয়ে ফেলে খুলনা টাইগার্স।

আফিফ হোসেন শুরু করেও ইনিংস বড় করতে পারেননি। ৩ চার ও ১ ছক্কায় ১৬ বলে ২৪ রান করে বেনি হাওয়েলের বলে এলবিডব্লিউ আউট হন তিনি। ৬ বলে ১ রান করে আউট হন মাহমুদুল হাসান জয়ও।

এরপর বড় জুটি গড়েন এনামুল হক বিজয় ও হাবিবুর রহমান সোহান। চতুর্থ উইকেটে ৬৭ বলে ৯৯ রানের জুটি গড়েন তারা। ৫ চার ও ২ ছক্কায় ৫৮ বলে ৬৭ রান করে অপরাজিত থাকেন বিজয়। ৩ চার ও সমান ছক্কায় ৩০ বলে ৪৩ রান করেন হাবিবুর রহমান সোহান। ৪ ওভারে স্রেফ ১৬ রান দিয়ে এক উইকেট নেন সানজামুল ইসলাম।

রান তাড়ায় নামা সিলেটকে শুরুতেই দুই ছক্কা হাঁকিয়ে ছন্দটা ধরিয়ে দেন সামিত প্যাটেল। যদিও ৯ বলে ১৩ রান করে আউট হয়ে যান তিনি। এরপর নাজমুল হোসেন শান্তর সঙ্গে ৩৪ বলে ৩২ রানের জুটি গড়েন হ্যারি টেক্টর। কিন্তু ৩ চারে ১৬ বলে ১৮ রান করার পর শান্ত ক্যাচ তুলে দেন মার্ক দেয়ালের বলে নাহিদুল ইসলামের হাতে।

ওই ওভারেই কোনো রান করার আগে ফেরেন জাকির হাসানও। এরপর আবার দলের হাল ধরেন মোহাম্মদ মিঠুন। তার সঙ্গী হিসেবে থাকেন শুরু থেকেই উইকেট আগলে থাকা হ্যারি টেক্টর। ৩৫ বলে দুজনের ৪২ রানের জুটি অবশ্য ভেঙে যায় এর মধ্যেই। এগিয়ে এসে খেলতে গিয়ে স্টাম্পিং হন মিঠুন। ১৯ বলে তার ব্যাটে আসে ২৪ রান।

শেষদিকে জমে ওঠে ম্যাচ। ১৩ বলে যখন ১৯ রান দরকার তখন আউট হয়ে যান হ্যারি টেক্টর। এই ব্যাটার ৬ চার ও ৩ ছক্কায় ৫২ বলে ৬১ রান করে আউট হন। কিন্তু ১৯তম ওভারে রুবেলকে তিন ছক্কা হাঁকিয়ে ম্যাচ জেতান বার্ল। ১৬ বলে ৩২ রান করে অপরাজিত থাকেন এই ব্যাটার।

৯ ম্যাচে ৩ জয়ে ৬ পয়েন্ট নিয়ে টেবিলের ছয়েই আছে সিলেট। অন্যদিকে ৮ পয়েন্ট নিয়ে চারে খুলনা।

গরম খবর
menu-circlecross-circle linkedin facebook pinterest youtube rss twitter instagram facebook-blank rss-blank linkedin-blank pinterest youtube twitter instagram