২৪শে মে, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ, ১০ই জ্যৈষ্ঠ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
shadhin kanto

পাইকগাছায় নতুন ঘরে স্থায়ী ঠিকানা হতে যাচ্ছে ২২০ ভূমিহীন পরিবারের

প্রতিনিধি :
স্বাধীন কণ্ঠ
আপডেট :
ডিসেম্বর ২৭, ২০২০
25
বার খবরটি পড়া হয়েছে
শেয়ার :
পাইকগাছায় নতুন ঘরে স্থায়ী ঠিকানা হতে যাচ্ছে ২২০ ভূমিহীন পরিবারের
| ছবি : পাইকগাছায় নতুন ঘরে স্থায়ী ঠিকানা হতে যাচ্ছে ২২০ ভূমিহীন পরিবারের

পাইকগাছা (খুলনা) প্রতিনিধি ॥ পাইকগাছায় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার উপহার হিসেবে মুজিব শতবর্ষে স্থায়ী ঠিকানা পাচ্ছেন ২২০ ভূমি ও গৃহহীন হতদরিদ্র পরিবার। এসব পরিবারের প্রত্যেকের জন্য নির্মাণ করা হচ্ছে উন্নতমানের পাকা বাড়ি। মুজিব শতবর্ষে দেশের একটি মানুষও গৃহহীন থাকবে না, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার এমন নির্দেশনার আলোকে প্রধানমন্ত্রী কার্যালয়ের অগ্রাধিকার ভিত্তিক প্রকল্প আশ্রয়ন প্রকল্প-২ (ক) শ্রেণি এর আওতায় প্রথম ধাপে নির্মাণ করা হচ্ছে ২২০টি ঘর। প্রতিটি ঘরের অনুকূলে ব্যয় ধরা হয়েছে ১ লাখ ৭১ হাজার টাকা।

উপজেলার বিভিন্ন ইউনিয়নে সরকারি জায়গা নির্ধারণ করে সেখানেই নির্মাণ করা হচ্ছে ভূমিহীনদের জন্য উন্নতমানের এসব ঘর। ২ শতক জমির ওপর ২ কক্ষ বিশিষ্ট ঘর নির্মাণ করা হচ্ছে। এর মধ্যে থাকছে রান্নাঘর ও বাথরুম। নতুন বছরের শুরুতেই সবুজ রঙের টিনের ছাউনীর পাকা ঘরে ঠিকানা হতে যাচ্ছে উপজেলার ২২০টি গৃহহীন পরিবারের। উপজেলা প্রকল্প বাস্তবায়ন কমিটির তত্বাবধায়নে ঘর নির্মাণ কাজ চলছে দ্রুত গতিতে। বিগত কয়েক মাস উপজেলার এ প্রান্ত থেকে অপার প্রান্তে ছুটে ছুটে ঘর নির্মাণের জন্য সরকারি জায়গা নির্ধারণ করেছেন উপজেলা প্রশাসনের তরুণ দুই কর্মকর্তা ইউএনও এবিএম খালিদ হোসেন সিদ্দিকী ও এসিল্যান্ড মুহাম্মদ আরাফাতুল আলম। ইতোমধ্যে গৃহহীনদের তালিকাও চূড়ান্ত করা হয়েছে।

এদিকে গুণগতমান বজায় রেখে যাতে ঘর নির্মাণ করা হয় এজন্য নির্মাণ কাজ সার্বিক তদারকি করছেন খুলনা জেলা প্রশাসন। জেলা প্রশাসক মোহাম্মদ হেলাল হোসেনের নির্দেশনায় শনিবার উপজেলার বিভিন্ন স্থানে নির্মাণ কাজ পরিদর্শন করেছেন অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক এলএ শাহানাজ পারভীন ও উপজেলা নির্বাহী অফিসার এবিএম খালিদ হোসেন সিদ্দিকী। এসময় উপস্থিত ছিলেন, উপজেলা প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকর্তা ইমরুল কায়েস ও পাইকগাছা প্রেসক্লাবের সহ-সভাপতি মোঃ আব্দুল আজিজ। জেলা প্রশাসনের এই কর্মকর্তা হরিঢালী ইউনিয়নের চরকপোতাক্ষী ও রাড়–লী ইউনিয়নের আলোকদ্বীপ এলাকার নির্মাণ কাজ পরিদর্শন করে সকল উপকরণের গুণগতমান বজায় রেখে নির্মাণ কাজ দ্রুত সম্পন্ন করার জন্য দিক নির্দেশনা দিয়েছেন। এডিসি শাহানাজ পারভীন বলেন, জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান একটি ক্ষুধা ও দারিদ্র মুক্ত দেশের স্বপ্ন দেখে ছিলেন। বঙ্গবন্ধু চেয়েছিলেন একটি মানুষও গৃহহীন কিংবা না খেয়ে থাকবে না। জাতির জনকের এমন স্বপ্ন লালন করে মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা মুজিব শতবর্ষে ঘোষণা দিয়েছেন দেশের একটি মানুষও ভূমিহীন থাকবে না। এই কর্মসূচির আওতায় জেলার বিভিন্ন স্থানে গৃহহীনদের জন্য উন্নতমানের ঘর নির্মাণ করা হচ্ছে।

জেলা প্রশাসন থেকে চলমান এই নির্মাণ কাজ সার্বিকভাবে তদারকি করা হচ্ছে। উপজেলা নির্বাহী অফিসার এবিএম খালিদ হোসেন সিদ্দিকী জানান, ইতোমধ্যে উপকারভোগীদের তালিকা এবং সরকারি জায়গা নির্ধারণ করা হয়েছে। নির্মাণ কাজও গুণগতমান বজায় রেখে দ্রুত গতিতে এগিয়ে চলছে। আশা করছি নতুন বছরের শুরুর দিকে মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার উপহার হিসেবে নবনির্মিত এসব ঘর তালিকাভুক্ত ভূমিহীনদের নিকট হস্তান্তর করতে পারবো।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

গরম খবর
menu-circlecross-circle linkedin facebook pinterest youtube rss twitter instagram facebook-blank rss-blank linkedin-blank pinterest youtube twitter instagram